‘বুদ্ধি থাকলে সত্যিই উপায় হয়’,বাঘের হাতে পরে নিজের বুদ্ধিবলে বেঁচে ফিরলো মেয়েটি, দেখুন ভিডিও

13

ভালুক আর দুই বন্ধুর কথা আমরা সকলেই শুনেছি। সকলেই জানি যে কিভাবে বুদ্ধির জোরে একজন বন্ধু বেঁচে গেছিলো ভাল্লুক এর হাত থেকে। একইসঙ্গে সে চিনে নিয়েছিল তার প্রিয় বন্ধুর আসল রূপ। এই গল্পটি আমরা ছোট থেকে পড়ে পড়ে বড় হয়েছি। আমরা শিখেছি যে যে কোন বন্যপ্রাণী, কখনো মৃত মানুষকে শিকার করে না। এই বুদ্ধিকে কাজে লাগিয়ে সম্প্রতি একটি মেয়ে বাঘের হাত থেকে রক্ষা পেয়ে গেল। যদিও ভিডিওটি একটি এ্যানিমেটেড ছবি ছাড়া অন্য কিছু নয়।

তবুও এই ভিডিওটির দ্বারা আমরা আরো একবার শিক্ষিত হলাম কিভাবে সাক্ষাৎ মৃত্যুর হাত থেকে রক্ষা পাওয়া যায়।সম্প্রতি এই ভিডিওটি ভাইরাল হয়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে। ভিডিওটিতে ছোট্ট দুই মেয়ে অভিনয় করেছে। তবে বাঘ টি একেবারেই আসল নয়। তাকে সাজানো হয়েছে কম্পিউটারের সাহায্যে।ভালুকের মতো একইরকম ভাবে বাঘ শিকার করতে এসেছিল। একজন গাছে উঠতে পারে বলেই উঠে পড়েছিল গাছে।

অপরজন একটি ছোট নালার মধ্যে বসে ছিল। বাঘ কাছে এসে যখন ছোট্ট মেয়েটির দেহের গন্ধ নিচ্ছে, তখন মেয়েটি একেবারে চুপ করে বসে ছিল।বাঘ টি মেয়েটিকে একটি পুতুল ভেবে সেখান থেকে চলে যায়। কিন্তু এই মুহূর্তে হঠাৎ করে বৃষ্টি নেমে যায়। মেয়েদের গা থেকে ধুয়ে যায় সমস্ত কাদা। তাড়াতাড়ি সে উঠে পরে জল থেকে।এমতাবস্থায় বাঘ আবার ফিরে আসে শিকার করার জন্য।কিন্তু তার মধ্যেই গাছ থেকে নামানো একটি দড়ি ধরে তাড়াতাড়ি গাছে উঠে পড়ে মেয়েটির।

শেষ মুহূর্তে বাঘের হাত থেকে বেঁচে যায় সে।ভিডিওটি সোশ্যাল-মিডিয়ায়-ভাইরাল হতেই বহু দর্শক দেখে ফেলেছেন এই ভিডিওটি। আর একবার একটি শিক্ষনীয় ভিডিও ভাইরাল হতে সকলেই খুশি।যদিও পুরোটাই অভিনয় তবু এরকম ভিডিও যেন বারবার সোস্যাল মিডিয়াতে ভাইরাল হয়, এমনটাই আশা করেছেন সকলে।