সাবধান বর্ষায় শাকসবজির রোগ সংক্রমণ থেকে ! কি করে সুস্থ থাকবেন

129
সাবধান বর্ষায় শাকসবজির রোগ সংক্রমণ থেকে ! কি করে সুস্থ থাকবেন

বর্ষায় শাকসবজি থেকে সংক্রমণের ভয় বেশি থাকে। টানা বৃষ্টির কারণে রোগজীবাণুর পরিমান বেড়ে যায়। এর ফলে সংক্রমণের ভয়ও বেড়ে যায়। তাই বাড়িতে শাকসবজি এনে ভাল করে ধুয়ে রান্না করে শ্রেয়। বর্ষার সময় কলমি, ছেঁচি, হিঞ্চে,পুঁই, লাল শাক, শাপলা ইত্যাদি না খাওয়াই ভাল।

কারণ বর্ষাকালে শাকসবজির মধ্যে পোকামাকড়, কাদা, কেঁচো ইত্যাদি মিশে থাকে। অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অফ হাইজিন অ্যান্ড পাবলিক হেলথ–এর হেলথ প্রোমোশন অ্যান্ড এডুকেশন বিভাগের ডিরেক্টর–প্রফেসর ডাঃ মধুমিতা দুবে বলেছেন, শহরের বাজারে যে সমস্ত শাকসবজি বিক্রি করা হয়, সেগুলো যেখানে উৎপন্ন হয় সেখানে এখনও অনেকক্ষেত্রে মলত্যাগ করা হয়।

বর্ষাকালে মাঠে ঘটে জল জমে থাকে। কাদার মধ্যে বৃদ্ধি পায় জীবাণু। তাই বর্ষাকালে যদি শাকসবজি ভালো করে ধুয়ে রান্না না করা হয় তবে বিভিন্ন সংক্রমণ এবং কৃমি হতে পারে। বিশেষ করে স্যালাডে ব্যবহৃত শাকসবজি ভাল করে ধুয়ে ফেলা উচিত।

সবজি কাটার পর খাবারে হাত দেওয়ার আগে ভাল করে হাত ধুয়ে নিন। বর্ষাকালে শাকসবজি ভাল করে সেদ্ধ করে খাওয়া উচিত।শাকসবজি কাটার পর ভাল করে হাত ধুয়ে শিশুদের খাওয়ান।শিশুদের ডায়েরিয়া, সর্দি, কাশি, নিউমোনিয়ার প্রকোপ বেশি হয়। বেশি সমস্যা দেখা দিলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।